কলকাতা

Tanima Chatterjee : সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের বোন তনিমা চট্টোপাধ্যায়ের টিকিট ফিরিয়ে নিতে চলেছে দল

কলকাতা, ২৯ নভেম্বর : ফের তৃণমূলে টিকিট বিভ্রান্তি। সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের বোন তনিমা চট্টোপাধ্যায়ের টিকিট ফিরিয়ে নিতে চলেছে দল। সূত্রের খবর এমনই। এই নিয়ে তৃণমূলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন তনিমাদেবী। তাঁর প্রশ্ন, টিকিট যদি সেই ফেরাবেই তাহলে দিল কেন?

কলকাতা পুরভোটের প্রার্থীতালিকায় একাধিক চমক দিয়েছে তৃণমূল। বাদ পড়েছে একাধিক পুরনো মুখ। ঠিক তেমনই জায়গা করে নিয়েছেন নতুন অনেকেই। তাঁদের মধ্যেই ছিলেন প্রয়াত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের বোন তনিমা চট্টোপাধ্যায়। ৬৮ নম্বর ওয়ার্ডের প্রার্থী হিসেবে নাম ঘোষণার পরদিন দাদার ছবিতে প্রণাম করে প্রচারে নেমে পড়েন তিনি। কিন্তু আদৌ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার সুযোগ তিনি পাবেন কি না, তা এখন প্রশ্ন চিহ্নের মুখে। গোল বাঁধে রবিবার। যদিও এদিন প্রচার করেছেন তিনি।

এদিন বিধায়ক দেবাশিস কুমারের কার্যালয় থেকে তৃণমূলের টিকিট বিলি চলছিল। সেখানে গিয়ে দলের প্রতীক সংগ্রহ করেন তনিমাদেবী। এর পর সিঁড়ি দিয়ে নামার সময় তাঁকে দাঁড় করানো হয়। প্রার্থী নিয়ে কিছু জটিলতা রয়েছে বলে জানিয়ে টিকিট ফিরিয়ে নেওয়া হয় তাঁর কাছ থেকে।

সুব্রতবাবুর বোন বলেন, “শুনছি সুদর্শনা মুখোপাধ্যায়কেই টিকিট দেওয়া হতে পারে। কিন্তু আমি তো প্রচার শুরু করে দিয়েছিলাম। যদি পালটানোরই ছিল, তাহলে আমাকে প্রার্থী করার কোনও প্রয়োজন ছিল না।”

এবিষয়ে এখনও দলের তরফে কিছু জানানো হয়নি তনিমাদেবীকে। এ বিষয়ে একাধিকবার সুদর্শনা মুখোপাধ্যায়ের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তা সম্ভব হয়নি।

সূত্রের খবর, ৬৮ নম্বর ওয়ার্ডে বিদায়ী কাউন্সিলর সুদর্শনা মুখোপাধ্যায়কেই প্রার্থী করতে চলেছে তৃণমূল। শেষ পর্যন্ত তা সত্যি হলে ৮৯ জন বিদায়ী কাউন্সিলর তৃণমূলের টিকিট পাবেন। এই নিয়ে সুদর্শনাদেবী বলেন, প্রার্থীপদ নিয়ে দলের তরফে কেউ যোগাযোগ করেনি। সংবাদমাধ্যমেই সব শুনছি।প্রসঙ্গত, এর আগেও ৬০ নম্বর ওয়ার্ডেও প্রার্থী বদলাতে হয়েছে তৃণমূলকে। টিকিট পেয়েছেন কাইজার আহমেদ।